English ভিডিও গ্যালারি ফটো গ্যালারি ই-পেপার শনিবার ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০ ১৭ ফাল্গুন ১৪২৬
ই-পেপার শনিবার ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০
 / সারাদেশ / এসএসসির প্রবেশপত্রে বিভাগ ভুল, ডোমারে কিশোরীর আত্মহত্যা
এসএসসির প্রবেশপত্রে বিভাগ ভুল, ডোমারে কিশোরীর আত্মহত্যা
ডোমার (নীলফামারী) সংবাদদাতা :
প্রকাশ: সোমবার, ৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১:১১ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

এসএসসির প্রবেশপত্রে বিভাগ ভুল, ডোমারে কিশোরীর আত্মহত্যা

এসএসসির প্রবেশপত্রে বিভাগ ভুল, ডোমারে কিশোরীর আত্মহত্যা

কর্তৃপক্ষের অবহেলার কারণে পরীক্ষা দেওয়া হলো না ডোমার উপজেলার মাহিগঞ্জ উচ্চবিদ্যালয়ের এসএসসি পরীক্ষার্থী তৃষ্ণা রায়ের। গতকাল রবিবার (২রা ফেব্রুয়ারি ২০২০) দুপুরে প্রবেশপত্রে বাণিজ্য বিভাগের বিষয়গুলি না এসে মানবিক বিভাগের বিষয়গুলি আসায় আত্মহত্যা করেছে একজন এসএসসি পরীক্ষার্থী। এ ঘটনায় এলাকাবাসী ও শিক্ষার্থীদের মধ্যে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে।

এ ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট বোড়াগাড়ী ইউপি চেয়ারম্যান মো. আমিনুল ইসলাম রিমুন জানান, আমি খবর পেয়ে এসে শুনলাম, মেয়েটি মাহিগঞ্জ উচ্চবিদ্যালয়ে এবারে এসএসসি পরীক্ষার্থী। গতকাল রবিবার বিদ্যালয়ে বিদায় অনুষ্ঠানের পর তাকে প্রবেশপত্র দেওয়া হয়। মেয়েটি তখন জানতে পারে, সে বাণিজ্য বিভাগে পড়লেও প্রবেশপত্রে মানবিক বিভাগের বিষয়গুলি এসেছে। সে দ্রুত বাড়িতে এসে নিজঘরে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে ঘরের সরে ঝুলে আত্মহত্যা করে। এ সময় তার বাবা কাজে বাহিরে ছিল, মা বাঁশের মুরা উঠানোর জন্য বাড়ির বাহিরে ছিল। মেয়েটির বাবা একজন দিনমজুর। অনেক কষ্ট করে পড়াশোনা করছিল। এলাকাবাসী এর বিচার চায়।

মাহিগঞ্জ উচ্চবিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. সিরাজুল ইসলাম জানান, আমি মাত্র আট মাস হলো বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক হিসাবে দায়িত্ব নিয়েছি। এর আগে যিনি প্রধান শিক্ষক ও অফিস সহকারীর দায়িত্ব পালন করেছেন তাদের অবহেলার কারণে এ ঘটনা ঘটেছে। কারণ রেজিস্ট্রেশন তখন হয়েছে। তারা যদি সঠিকভাবে পর্যবেক্ষণ করে রেজিস্ট্রেশন করত তাহলে এ দুর্ঘটনা ঘটত না। আমি মেয়েটিকে বলেছি, আবশ্যিক বিষয়গুলি এখন পরীক্ষা দেও বাণিজ্য বিভাগের বিষয়ের পরীক্ষাগুলি তো ১৮, ১৯, ২২ তারিখে এর মধ্যে দ্রুত বোর্ডে গিয়ে এগুলো আমি ঠিক করে দেব। কিন্তু মেয়েটি বাড়িতে গিয়ে আত্মহত্যা করেছে। ঘটনাটি অবশ্যই দুঃখজনক।

এ ব্যাপারে ডোমার থানা অফিসার ইনচার্জ মো. মোস্তাফিজার রহমান জানান, লাশের পরিবার এলাকাবাসীর কাছে কর জোরে ক্ষমা চাচ্ছে লাশ না কাটার জন্য। লাশ সৎকারের ব্যবস্থা চলছে। ডোমার থানায় একটি ইউডি মামলা হচ্ছে।

এ ব্যাপারে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার শাকেরিনা বেগম জানান, রেজিস্ট্রেশনের সময়  বিষয় উল্লেখ থাকে। তবে ধাপে ধাপে সেগুলো পরিবর্তনের সুযোগ আছে। এখন শিক্ষাবোর্ড অনেক লিবারেল। যেকোনো সমস্যা তাৎক্ষণিক সমাধান করে দেয়। উনি আমাদের জানাননি।

এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী অফিসার শাহিনা শবনব জানান, আমি একটি মিটিংয়ে আছি, কিছুক্ষণের মধ্যে যাচ্ছি। আমি ওসিকে প্রধান শিক্ষককে গ্রেপ্তার করতে বলেছি। আগের প্রধান শিক্ষকের বিষয়টিও দেখছি।

উল্লেখ্য, তৃষ্ণা রায় উপজেলার বোড়াগাড়ী ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ডের দোদিপাড়ার দিনমজুর দুলাল রায়ের মেয়ে। এবার দিনাজপুর বোর্ডে এসএসসি পরীক্ষার্থী ছিল।




সর্বশেষ খবর
লুকোচুরি গল্প
ভাইবোনের সম্পর্ক ছিল সালমানের সঙ্গে : শাবনূর
সাতপাঁকে বাঁধা পড়লেন সৌম্য
খালেদা জিয়ার জামিন খারিজ করেছেন হাইকোর্ট
মুক্তিযুদ্ধে ভারতের অবদান থাকায় মোদিকে দাওয়াত
রাজধানীর আবাসিক হোটেলগুলোতে তৎপরতা বাড়ানো হবে
ফের বাড়ছে বিদ্যুতের দাম
সর্বাধিক পঠিত
মোরা রাম আর রহিম ভাই ভাই আর নই : মিমি
লুকোচুরি গল্প
মুজিব বর্ষে ​​​​​​​আসছে ২০০ টাকার নোট ও স্বর্ণ মুদ্রা
সোনাদিয়ায় গভীর সমুদ্রবন্দর না করার ইঙ্গিত প্রধানমন্ত্রীর
এখনো হুমায়ূন আহমেদ
দুইদিনের সফরে ভারত পৌঁছেছেন ট্রাম্প
সরকারের সায় রয়েছে বলেই পাপিয়ারা ধরা পড়ছে: ওবায়দুল কাদের
আরও দেখুন...


Copyright © 1962-2019
All rights reserved
সম্পাদক, প্রকাশক ও মুদ্রাকর: মোহাম্মদ নিজাম উদ্দিন জিটু
সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : রেড ক্রিসেন্ট বোরাক টাওয়ার, লেভেল-৫, ইস্কাটন গার্ডেন রোড, রমনা, ঢাকা-১০০০।
ফোনঃ +৮৮-০২-৯৬৬৬৬৮৫, ৯৬৭৫৮৮৫, ৯৬৬৪৮৮২-৩, ফ্যাক্সঃ +৮৮-০২-৯৬১১৬০৪, হটলাইন : +৮৮০-১৯২৬৬৬৭০০২-৩, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
Website: http://www.dainikbangla.com.bd, Developed by i2soft
সম্পাদক, প্রকাশক ও মুদ্রাকর: মোহাম্মদ নিজাম উদ্দিন জিটু
সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : রেড ক্রিসেন্ট বোরাক টাওয়ার, লেভেল-৫, ইস্কাটন গার্ডেন রোড, রমনা, ঢাকা-১০০০।
ফোনঃ +৮৮-০২-৯৬৬৬৬৮৫, ৯৬৭৫৮৮৫, ৯৬৬৪৮৮২-৩, ফ্যাক্সঃ +৮৮-০২-৯৬১১৬০৪, হটলাইন : +৮৮০-১৯২৬৬৬৭০০২-৩, ই-মেইল : [email protected], [email protected]